Home » Blog » Tech News » দেশের বাজারে সেরা ৪ ফ্ল্যাগশিপ স্মার্টফোন

দেশের বাজারে সেরা ৪ ফ্ল্যাগশিপ স্মার্টফোন

সেরা ফ্ল্যাগশিপ স্মার্টফোন কোনটি? মানুষ এখন তথ্যপ্রযুক্তি ও যোগাযোগমাধ্যম সম্পর্কে অনেক সচেতন। নতুন নতুন উদ্ভাবন ও সেরা প্রযুক্তির মাধ্যমে দ্রুততর যোগাযোগ রক্ষা করাই অন্যতম লক্ষ্য। এজন্য যোগাযোগের অন্যতম মাধ্যম স্মার্টফোনের চাহিদাও বেড়েছে। এমনকি করোনা শুরু হওয়ার পর সাধারণ স্মার্টফোনের পাশাপাশি ফ্ল্যাগশিপ স্মার্টফোনের চাহিদাও বেড়েছে।

ফ্ল্যাগশিপ স্মার্টফোন হলো নিজস্ব যেকোনো একটি নির্দিষ্ট সিরিজের সবচেয়ে উন্নত ও সেরা প্রযুক্তির অত্যাধুনিক স্মার্টফোন। তাই রুচি ও প্রয়োজনের সঙ্গে আর্থিক সঙ্গতি থাকলেই গ্রাহকদের প্রথম পছন্দ ফ্ল্যাগশিপ সিরিজের স্মার্টফোন। এ মুহূর্তে বাংলাদেশের বাজারে থাকা সেরা ৪টি স্মার্টফোন নিয়ে আমাদের আজকের আয়োজন-

আইফোন ১১ প্রো ও আইফোন ১১ প্রো ম্যাক্স: স্মার্টফোন দু’টি আইওএস ১৩ অপারেটিং সিস্টেমে চলবে। এছাড়াও স্মার্টফোন দু’টিতে ৫.৮ ইঞ্চি এবং ৬.৫ ইঞ্চির সুপার রেটিনা এক্সডিআর ওএলইডি ডিসপ্লে যুক্ত করা হয়েছে। ফোনের ভেতরে আছে এ১৩ বায়োনিক চিপ। দুটি ফোনে পানি বা ধূলোয় কোনো সমস্যা হবে না। এর পেছনে তিনটি ও সামনে একটি ক্যামেরা আছে। সামনের ক্যামেরাটি ১২ মেগাপিক্সেলের (এমপি)।

পেছনের ক্যামেরাগুলো যথাক্রমে ১২ এমপির প্রাইমারি ক্যামেরা, ১২ এমপির ওয়াইড অ্যাঙ্গেল ক্যামেরা এবং ১২ এমপির টেলিফটো ক্যামেরা। ৬৪ জিবি স্টোরেজের আইফোন ১১ প্রোর দাম ৮৪ হাজার ৯১৫ টাকা। তবে ২৫৬ জিবি ও ৫১২ জিবির সংস্করণগুলো কিনতে খরচ হবে ৯৭ হাজার ৬৬৫ টাকা। এদিকে আইফোন ১১ প্রো ম্যাক্সের ৬৪ জিবি ভেরিয়েন্টের দাম ৯৩ হাজার ৪১৫ টাকা। আবার ২৫৬ জিবি ও ৫১২ জিবি ভেরিয়েন্ট কিনতে লাগবে ১ লাখ ৬ হাজার ১৬৫ টাকা।

ভিভো এক্স৬০প্রো: চলতি বছর দেশের ফ্ল্যাগশিপ স্মার্টফোনের তালিকায় অন্যতম নাম ভিভো এক্স৬০প্রো। কারণ ভিভো এক্স৬০প্রোতে কিছু দুর্দান্ত প্রযুক্তি যুক্ত করা হয়েছে। এ স্মার্টফোনে ভিভো ও কার্ল জেইসের যৌথ প্রকৌশলে তৈরি মোবাইল ইমেজিং সিস্টেম যুক্ত করা হয়েছে। চমৎকার লেন্সের জন্য ফোনের ক্যামেরাটি পেশাদার মানের ফটোগ্রাফি এবং ভিডিও নিতে সক্ষম।

ছবি তোলা বা ভিডিও করতে গিয়ে কেঁপে ওঠা এড়াতে ভিভো এক্স৬০প্রোতে যুক্ত করা হয়েছে গিম্বল স্টেবিলাইজেশন ২.০ প্রো প্রযুক্তি। ১২ জিবি র্যামের সঙ্গে ভিভো এক্স৬০প্রোতে রয়েছে ২৫৬ জিবির রম এবং ৩৩ ওয়াটের ফ্ল্যাশ চার্জিং সুবিধা। বাংলাদেশে ভিভো এক্স৬০প্রোর মূল্য ৬৯ হাজার ৯৯০ টাকা। বাংলাদেশে এটিই ভিভোর প্রথম এক্স সিরিজ এবং হাই-এন্ডের স্মার্টফোন।

স্যামসাং গ্যালাক্সি এস২০ এফই: স্যামসাং গ্যালাক্সি এস২০ এফইতে আছে ৩২ এমপির একটি সেলফি ক্যামেরা। কোয়াড ক্যামেরা হিসেবে স্মার্টফোনটিতে আছে ১২ এমপির আলট্রা ওয়াইড, ১২ এমপির ওয়াইড এবং ৮ এমপির টেলিফটো লেন্সযুক্ত ক্যামেরা।

৪৫০০ এমএএইচ ব্যাটারির সঙ্গে স্যামসাং গ্যালাক্সি এস২০ এফইতে আছে এক্সিনোস ৯৯০ প্রসেসর। ৬/৮ জিবি র্যামের সঙ্গে স্যামসাং গ্যালাক্সি এস২০ এফইতে আছে ১২৮/২৫৬ জিবি রম। এছাড়াও আছে ২৫ ওয়াটের ফাস্ট চার্জিং প্রযুক্তি। বাংলাদেশে স্যামসাং গ্যালাক্সি এস২০ এফইর মূল্য ৬৪ হাজার ৯৯৯ টাকা।

এসইউ/জিকেএস

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *